করোনার কারণে বিশ্বব্যাপী আমদানি-রপ্তানিতে মন্দা তৈরি হওয়ায় বেড়েছে বাণিজ্য ঘাটতি। চলতি অর্থবছরের প্রথম আট মাসে বাণিজ্য ঘাটতি দাঁড়িয়েছে ৯১ হাজার ৫৭০ কোটি টাকা। তবে এখনি পরিস্থিতি মূল্যায়নের সময় আসেনি বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। এ অবস্থায় আমদানি-রপ্তানি সচল রাখতে বিভিন্ন দেশের সঙ্গে যোগাযোগ বাড়ানোর পরামর্শ দিয়েছেন অর্থনীতিবিদরা।

করোনায় আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্যে তৈরি হয়েছে অচলাবস্থা। বিশ্ব অর্থনীতিতেও দেখা দিয়েছে স্থবিরতা। যার প্রভাব পড়েছে দেশের অর্থনীতিতে।বাংলাদেশ ব্যাংকের সবশেষ প্রতিবেদন বলছে, চলতি অর্থবছরের ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত আট মাসে রপ্তানি হয়েছে ২ লাখ ১৭ হাজার ৬’শ কোটি টাকার পণ্য। এর বিপরীতে আমদানি হয়েছে ৩ লাখ ৯ হাজার ১’শ ৭০ কোটি টাকার। এতে বাণিজ্য ঘাটতি দাঁড়িয়েছে ৯১ হাজার ৫৭০ কোটি টাকা।

রপ্তানি আয় কমায় বহির্বিশ্বের সঙ্গে বাণিজ্য ঘাটতি বাড়ছে বলে মনে করছেন অর্থনীতিবিদরা। বিশ্বের বিভিন্ন দেশে লকডাউনের কারণে দেশের বাণিজ্যও ক্ষতির মুখে পড়ছে বলে জানান তারা।

এ অবস্থায় যেসব দেশে করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হতে শুরু করেছে তাদের সঙ্গে বাণিজ্য যোগাযোগ বাড়ানো জরুরি বলে মনে করছেন অর্থনীতিবিদরা।