মিয়ানমারের উত্তরাঞ্চলে একটি রত্মখনিতে ভূমিধসে শতাধিক শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। এখন পর্যন্ত ১২৬ শ্রমিকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে বলে কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরো ৫৪ জন। এছাড়া নিখোঁজ রয়েছেন অনেকে।

বৃহস্পতিবার ভোরে কাচিন রাজ্যের হপকান্ত এলাকায় ভূমিধসের এ ঘটনা ঘটে বলে মিয়ানমারের তথ্য মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা তার লিন মাউং টেলিফোনে রয়টার্সকে জানিয়েছেন। ফায়ার সার্ভিস জানিয়েছে, ভারী বৃষ্টির কারণে হঠাৎ ভূমিধসে তলিয়ে যান খনির শ্রমিকরা। বেঁচে যাওয়া এক শ্রমিক জানান, মুহূর্তের মধ্যেই পাহাড় থেকে নেমে আসা ঢলে তলিয়ে যায় আরো অনেকে।
এদিকে, পুলিশের অভিযোগ নিষেধাজ্ঞার পরও বুধবার খনিতে কাজ করছিলেন শ্রমিকেরা। গত বছরও একই ধরনের দুর্ঘটনায় শতাধিক খনি শ্রমিক নিহত হন।

গণমাধ্যমের প্রতিবেদন অনুযায়ী, সাম্প্রতিক বছরগুলোতে হপকান্তে বহু লোক নিহত হয়েছেন। তাদের অনেকেই স্বাধীন রত্ন সন্ধানী। বড় খনিগুলো অনুসন্ধান চালানোর পর পড়ে থাকা অবশিষ্টাংশের মধ্যে রত্ন খোঁজেন তারা। মিয়ানমারে উত্তোলিত জেড পাথরের অধিকাংশই প্রতিবেশী দেশ চীনে রপ্তানি হয়।